আজ , শনিবার, ২৫ জুন ২০২২

রাউজানের ছত্রপাড়ায় জনগনের চলাচলের সড়ক দখল ও কৃষি জমি ভরাট করে পাকা ঘর নির্মান করার অভিযোগ

লেখক : সাহেদুর রহমান মোরশেদ | প্রকাশ: ২০২২-০৫-২৮ ১২:৩৪:১৭

শফিউল আলম, রাউজানবার্তাঃ

রাউজান পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের ছত্র পাড়ায় আবদুল গনী সওদাগর সড়কের একাংশ দখল করে কৃষি জমি মাটি ভরাট করে নির্মান করা হচ্ছে পাকা ঘর। পাকাঘর নির্মানের জন্য ইট সহ নির্মান সামগ্রী ভর্তি ট্রাক আবদুল গনী সড়ক দিয়ে নিয়ে যাওয়ার সময়ে আবুদুল গনী সড়কের বেরুলিয়া খালের উপর নির্মান করা ব্রীজের দেওয়াল ভেঙ্গে যায় ট্রাকের ধাক্কায়।

আবদুল গনী সড়কের জায়গা দখল ও কৃষি জমি ভরাট করে পাকা ঘর নির্মান কাজের বিরুদ্বে এলাকার বাসিন্দ্বারা রাউজান পৌরসভায় অভিযোগ করেন।

এলাকার বাসিন্দ্বা মিয়া সওদাগর সহ এলাকার লোকজন অভিযোগ করে বলেন, চট্টগ্রাম নগরীর আর্মি কলোনী এলাকার বাসিন্দ্বা খোরশেদুল আলম ছত্র পাড়া এলাকার নুরুল ইসলাম থেকে কৃষি জমি ক্রয় করেন। খোরশেদ তার ক্রয় করা কৃষি জমি মাটি ভরাট করে জনগনের চলাচলের সড়ক আবদুল গনী সওদাগর সড়কের একাংশ দখল করে নির্মান করছে পাকা ঘর।

পাকা ঘর নির্মানের জন্য নির্মান সামগ্রী নিয়ে ট্রাক আবদুল গনী সড়ক দিয়ে যাওয়ার সময়ে আবদুল গনী সড়কের বেরুলিয়া খালের উপর নির্মান করা ব্রীজের দেওয়াল ট্রাকের ধাক্কায় ভেঙ্গে ফেলে।

এ ব্যাপারে পাকাঘর নির্মানকারী খোরশেদুল আলমকে ফোন করে জানতে চাইলে, খোরশেদুল আলম বলেন, ব্রীজ ট্রাকে ভেঙ্গেছে আমার কি দোষ। সড়কের একাংশ দখল করে কৃষি জমি মাটি ভরাট করে সরকারী নির্দেশনা অমান্য করে পাকা ঘর নির্মান করা প্রসঙ্গে খোরশেদ আলমের কাছে জানতে চাইলে, রাউজান পৌরসভার প্রকৌশলী ও পৌর কাউন্সিলারের কাছে জিজ্ঞাসা করতে বলেন।

এব্যাপারে রাউজান পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের কা¦উন্সিলর আজাদ হোসেনকে কয়েক দফে ফোন করে জানতে চাইলে ও পৌর কাউন্সিলর আজাদ হোসেন তার মোবাইল ফোন ধরেনি। এ ব্যাপারে রাউজান পৌরসভার মেয়র জমির উদ্দিন পারভেজের কাছে জানতে চাইলে, পৌর মেয়র জমির উদ্দিন পারভেজ বলেন, আমি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহন করবো।